December 3, 2023, 1:30 pm

“জাতীয় নিরাপদ সড়ক দিবস”-২০২৩ উদযাপণ করলো নাভারণ হাইওয়ে থানা

মোঃ সাহিদুল ইসলাম শাহীনঃ- দেশে কোনভাবেই সড়ক দুর্ঘটনার সংখ্যা কমানো যাচ্ছে না। পত্রিকার পাতা খুললে কিংবা টিভি চ্যানেলের সংবাদের দিকে চোখ রাখলে প্রায় প্রতিদিনই চোখে পড়ে সড়ক দুর্ঘটনায় আহত ও নিহত হওয়ার খবর। দেশে প্রতিনিয়ত মর্মান্তিক সড়ক দুর্ঘটনা ঘটে চলেছে। সড়ক দুর্ঘটনা সরকারি-বেসরকারি পর্যায়ে নানা উদ্যোগ গ্রহণ করা হলেও এখন দুর্ঘটনার লাগাম টেনে ধরা সম্ভবপর হয়ে ওঠেনি। ফলে প্রায় প্রতিদিন সড়ক দুর্ঘটনা ঘটছে; পাল্লা দিয়ে বাড়ছে হতাহতের ঘটনা। ২২ অক্টোবর ছিল “জাতীয় নিরাপদ সড়ক দিবস”।

যথাযথ ভাবে দিবসটি উদযাপণ করলো যশোর জেলার নাভারণ হাইওয়ে থানা পুলিশ। এ উপলক্ষে জনসচেতনতা আনতে থানার পক্ষ থেকে সড়ক র‍্যালি ও আলোচনা সভার আয়োজন করা হয়।

রবিবার(২২ অক্টোবর) বেলা ১১টার দিকে থানা পুলিশ ও সাধারণের সমন্বয়ে থানা কার্যালয় হতে র‍্যালি টি বের করা হয়। এতে নেতৃত্ব দেন নাভারণ হাইওয়ে থানার ইনচার্জ আব্দুল্লাহ আল মামুন। র‍্যালি টি নাভারণ বাজারের প্রধান প্রধান সড়ক প্রদক্ষিণ শেষে পূণরায় থানা কার্যালয়ে এসে শেষ হয়।

“জাতীয় নিরাপদ সড়ক দিবস”-২০২৩ পালণে জাতীকে কতটুকু সচেতন করা গেল? আলোচনার এক প্রশ্নের জবাবে থানা ইনচার্জ আব্দুল্লাহ আল মামুন বলেন-“দেশের সার্বিক সড়ক দুর্ঘটনার বিষয়গুলো পর্যালোচনা করলে দেখা যায়, চালকদের অদক্ষতা, বেপরোয়া গতিতে গাড়ি চালানো, ওভারটেকিং করার প্রবল মানসিকতা, ড্রাইভিং লাইসেন্স প্রাপ্তিতে স্বচ্ছতা ও জবাবদিহির অভাব, জনসচেতনতার অভাব, ট্রাফিক আইন কিংবা রাস্তায় চলাচলের নিয়ম না মানা দুর্ঘটনার গুরুত্বপূর্ণ কারণ হিসেবে চিহ্নিত করা হয়ে থাকে। সড়ক দুর্ঘটনার অন্যান্য কারণগুলোর মধ্যে রয়েছে, পরিকল্পনাহীনভাবে সড়ক-মহাসড়ক নির্মাণ, নির্দিষ্ট লেন ধরে গাড়ি না চালিয়ে সড়কের মাঝখান দিয়ে চালকদের গাড়ি চালানোর প্রবণতা, রাস্তায় বিপজ্জনক বাঁক বিদ্যমান থাকা, ফিটনেসবিহীন গাড়ি চালানো, মাদক সেবন করে গাড়ি চালানো, চালকদের বেপরোয়া গতিসহ ভুলপথে গাড়ি চালানো, রাস্তা দিয়ে চলাচলকারীদের ফুটপাত ব্যবহার না করে রাস্তার মাঝখান দিয়ে চলাচল, রাস্তা পারাপারের জন্য ওভার ব্রিজ থাকলেও তা ব্যবহার না করা, রাস্তার ওপর বা ফুটপাতে দোকানপাট সাজিয়ে ব্যবসা-বাণিজ্য করা, যত্রতত্র গাড়ি পার্কিং করা, দুর্বল ও দুর্নীতিগ্রস্ত ট্রাফিক ব্যবস্থা এবং সর্বোপরি রাস্তায় চলাচলে বিদ্যমান নিয়ম-কানুন প্রতিপালনে সংশ্লিষ্টদের অনীহা। দেশের সড়ক-মহাসড়কগুলোতে যেভাবে দুর্ঘটনা ঘটছে এবং দুর্ঘটনার সংখ্যা দিনে দিনে যে হারে বৃদ্ধি পাচ্ছে, তা যদি অতিদ্রুত রোধ করার ব্যাপারে বাস্তবমুখী ও যথাযথ পদক্ষেপ গ্রহণ করা না হয় বা যথাযথ সতর্কতা অবলম্বন করা না হয়, তাহলে আগামীতে সড়ক দুর্ঘটনা ও হতাহতের সংখ্যা বাড়তে থাকবে এটিই সত্যি”।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

     এই বিভাগের আরও খবর